পদ্মাসেতুর পৌনে ৬ কিলোমিটার দৃশ্যমান

দেশ ডেস্ক: মূল পদ্মা সেতুতে বসানো হলো ৩৬তম স্প্যান। শুক্রবার সকালে মুন্সিগঞ্জের মাওয়া প্রান্তের ২ ও ৩ নম্বর পিলারের ওপর ৩৬তম স্প্যানটি বসানো হয়।

এখন বাকি ৫ স্প্যান বসানো। ৩৬ তম স্প্যান বসানোর মধ্য দিয়ে দৃশ্যমান হলো পদ্মা সেতুর পাঁচ হাজার চার শ মিটার। বাকি পাঁচটি স্প্যান বসানো হলে আরো ৭৫০ মিটার দৃশ্যমান হবে।

প্রকৌশলীরা জানিয়েছেন, আগামী ১১ নভেম্বর ৩৭তম স্প্যান বসানোর পরিকল্পনা আছে। পদ্মা সেতুর নির্বাহী প্রকৌশলী দেওয়ান মো. আব্দুল কাদের বলেন, ‘আজ সকাল ৯টা ৪২ মিনিটের দিকে ওয়ান-বি স্প্যানটি মূল সেতুতে বসানো হয়েছে। এটি করতে দুই ঘণ্টার কম সময় লেগেছে।’

প্রকৌশলীরা আরও জানান, গতকাল মাওয়া কন্সট্রাকশন ইয়ার্ড থেকে স্প্যান নিয়ে রওনা হয় তিয়ান-ই ভাসমান ক্রেন। নাব্যতা সংকটের কারণে পৌঁছাতে বেশি সময় লেগে যায়। নোঙর করার পরে স্প্যান বসানোর জন্য পর্যাপ্ত ছিল না। তাই দ্বিতীয় দিনে স্প্যান বসানো হলো।

পদ্মাসেতুর প্রকল্প পরিচালক শফিকুল ইসলাম বলেন, করোনা ও বন্যা পরিস্থিতির জন্য চার মাস পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ বন্ধ ছিল। অক্টোবর মাসের টার্গেট অনুযায়ী চারটি স্প্যান সফলভাবে বসানো সম্ভব হয়েছে। চলতি মাসেও চারটি স্প্যান বসানোর পরিকল্পনা আছে।

আগামী ১১ নভেম্বর ৩৭তম স্প্যান (২-সি), ১৬ নভেম্বর ৩৮তম স্প্যান (১-এ), ২৩ নভেম্বর ৩৯তম স্প্যান (২-ডি), ২ ডিসেম্বর ৪০তম স্প্যান (২-ই) ও ১০ ডিসেম্বর সর্বশেষ ৪১ নম্বর স্প্যান (২-এফ) বসানো হবে।

Leave a Reply