প্রবাসীদের ইমো হ্যাক করতো তারা


স্টাফ রিপোর্ট, রাজশাহী: টার্গেট করে প্রবাসীদের ইমো হ্যাক করতো প্রতারক চক্র। বাদ জাননি দেশে বাস করেন এমন মানুষজনও। নানান কৌশলে প্রতারণার মাধ্যমে হাতিয়ে নিতেন মোটা অর্থ। সংঘবদ্ধ এই চক্রের দুই সদস্যকে পাকড়াও করেছে রাজশাহী জেলা পুলিশ। 


মঙ্গলবার (২৪ আগস্ট) দিবাগত গভীর রাতে জেলা গোয়েন্দা পুলিশের একটি দল জেলার বাঘা উপজেলার পানিকামড়া এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করে।


এই দুই ইমো হ্যাকার হলেন- বাঘার মালিয়ানদহ এলাকার মোহসিন আলীর ছেলে গোলাম রাব্বী (১৯) এবং একই উপজেলার জাতকাদিরপুর এলাকার আবদুল মান্নান শাহের ছেলে সেলিম রেজা ওরফে সাদ্দাম (২৬)। বাঘা থানার মামরায় বুধবার (২৫ আগস্ট) তাদের আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়।


এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন জেলা পুলিশের মুখপাত্র ইফতেখায়ের আলম। তিনি বলেন, এই দুই যুবক প্রবাসী এবং দেশে অবস্থানকারী বিভিন্ন ব্যক্তির ইমো হ্যাক করতেন। ইমো হ্যাক করতে অন্যের জাতীয় পরিচয়পত্র দিয়ে তোলা মোবাইল সিম ব্যবহার করতেন এরা। ইমো হ্যাক করার পর প্রতারণার মাধ্যমে মোটা অংকের অর্থ হাতিয়ে নিতেন।  


জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) সনাতন চক্রবর্তীর নেতৃত্বে অপরাধীদের ধরতে অভিযান শুরু করে পুলিশ। এই অভিযানে সরাসরি অংশ নেন ডিবির পুলিশ পরিদর্শক রুহুল আমিনসহ একটি টিম বিশেষ। মঙ্গলবার দিবাগত রাত সোয়া ১টার তাদের গ্রেফতার করা হয়।


জিজ্ঞাসাবাদে এই দুই প্রতারক জানিয়েছেন, তারা ইমোতে প্রবাসীসহ দেশের বিভিন্ন বয়সী মানষকে অ্যাড করতেন। এরপর আলাপ জমিয়ে কৌশলে আইডি হ্যাক করতেন। পরে আইডির দখল নিয়ে পরিজনদের বার্তা পাঠিয়ে নানান অজুহাতে অর্থ হাতিয়ে নিতেন। অর্থ লেনদেনে মোবাইল ব্যাংক ব্যবহার করতেন তারা।

এই চক্রে জড়িত আরো কয়েকজনের তথ্য তারা পুলিশকে দিয়েছেন। তাদেরও আইনের আওতায় আনার চেষ্টা করছে পুলিশ। 

Leave a Reply