রতন হত্যাকাণ্ডের নেপথ্যে পরকীয়া 

স্টাফ রিপোর্টার: নওগাঁর রাণীনগরে রতন সরকার (৪৬) হত্যাকাণ্ডের রহস্যজট খুলেছে। পরকীয়ার জেরে এই মাছ চাষিকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

নিহত রতন দেউলা মানিকহার গ্রামের মৃত রবিন্দ্রনাথ সরকারের ছেলে।

শনিবার (২ এপ্রিল) দিবাগত রাতে উপজেলার দেউলা মানিকহার গ্রামে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় দুজনকে আটক করেছে পুলিশ। রবিবার (৩ এপ্রিল) আদালতে তাদের প্রেরণ করা হয়।

আরও পড়ুন: স্বামীর পরকীয়ায় ছেলেসহ আত্মঘাতি স্ত্রী

আটককৃতরা হলেন- দেউলা মানিকহার গ্রামের সুশীল চন্দ্র সরকার (৫২) ও তার স্ত্রী মাধবী রানীকে (৩৫)।

এ বিষয়ে রাণীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহিন আকন্দ জানান, নিহত রতন সরকার একজন মাছ চাষি। গ্রামে তিনি নিজের দুইটি পুকুরে মাছ চাষ করতেন।

শনিবার রাত ১১টার দিকে রতন পুকুর দেখাশোনার কথা বলে বাড়ি থেকে বেরিয়ে পরকিয়া প্রেমিকা মাধবীর কাছে যান।

আরও পড়ুন: স্ত্রী নির্যাতন-পরকীয়ায় চাকরি গেল এসআই নাছিরের

এ সময় সুশীল বিষয়টি জানতে পেরে দেশীয় অস্ত্র হাসুয়া দিয়ে রতনকে এলোপাথাড়ি কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে বাড়ির পাশের উঠানে ফেলে রেখে চলে যান।

মধ্যরাতে তার পরিবারের লোকজন জানতে পারে বাড়ির কাছে একটি উঠানে জখম অবস্থায় পড়ে আছে রতন। এরপর রতনের পরিবারের লোকজন তাকে জখম অবস্থায় উদ্ধার করেন।

পরে রাণীনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক রতনকে মৃত ঘোষণা করেন।

আরও পড়ুন: পরকীয়ার জেরে গ্রাম্য কবিরাজ খুন

ওসি আরও জানান, পরকিয়ার জের ধরে রতনকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় সুশীল ও তার স্ত্রীকে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করা হয়।

এরপর পুলিশ সুশীল ও তার স্ত্রীকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করলে পরকিয়ার জের ধরে রতনকে কুপিয়ে হত্যা করেছে বলে স্বীকার করেন সুশীল।

আটক দুজনকে রবিবার আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

Leave a Reply