রাজশাহী নগরীতে শব্দ দুষণকারীদের ধরতে অভিযান শুরু করেছে পরিবেশ অধিদপ্তর। সোমবার (৪ এপ্রিল) নগরীর নীরব ঘোষিত এলাকাগুলোতে এই অভিযান চালানো হয়।

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী: রাজশাহী নগরীতে শব্দ দুষণকারীদের ধরতে অভিযান শুরু করেছে পরিবেশ অধিদপ্তর। সোমবার (৪ এপ্রিল) নগরীর নীরব ঘোষিত এলাকাগুলোতে এই অভিযান চালানো হয়।

 বিশেষ এই অভিযানে নেতৃত্ব দেন জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সুমন চৌধুরী। এতে প্রসিকিউটরের দায়িত্ব পালন করেন পরিবেশ অধিদপ্তর রাজশাহী জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক কবির হোসেন।

 অভিযান শেষে কবির হোসেন জানান, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল, ঘোষপাড়া মোড়, লক্ষ্মীপুর মোড়, সিএন্ডবি মোড় নীরব এলাকা হিসেবে ঘোষণা করা রয়েছে।  শব্দ দুষণ নিয়ন্ত্রণে এসব এলাকায় অভিযান চালানো হয়।

 নিরব এলাকায় যানবাহনের হর্ণ বাজানোর দায়ে এসময় দুজনকে ৫০০ টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে। তবে অভিযান চলাকালে বিপুল সংখ্যক যান চালককে এবিষয়ে সচেতন করা হয়েছে।

 শব্দ দুষণমুক্ত নগর গড়তে এই অভিযান চলবে বলে জানান কবির হোসেন।

জাতিসংঘের পরিবেশ কর্মসূচির (ইউএনএপি) ‘বার্ষিক ফ্রন্টিয়ারস রিপোর্ট-২০২২’  প্রতিবেদন অনুযায়ী, যানবাহনজনিত শব্দদূষণের শহরের তালিকায় শীর্ষে রাজধানী ঢাকা। এই তালিকায় চতুর্থ স্থানে রয়েছে রাজশাহী।

প্রতিবেদনটিতে শব্দের তীব্রতার মাত্রা দুই পর্যায়ে নির্ধারণ করা হয়েছে—আবাসিক ও ট্রাফিক এলাকা। 

ট্রাফিক এলাকায় ঢাকায় শব্দের তীব্রতার মাত্রা ১১৯ ডেসিবল এবং আবাসিক এলাকায় ৫৭ ডেসিবল রেকর্ড করা হয়েছে। 

যেখানে রাজশাহীতে ট্রাফিক এলাকায় শব্দের তীব্রতার মাত্রা ১০৩ ডেসিবল এবং আবাসিক এলাকায় ৫৫ ডেসিবল রেকর্ড করা হয়েছে।

Leave a Reply