দুই ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে ছিনতাইয়ের অভিযোগ

রাবি: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা সশরীরে উপস্থিতির মাধ্যমে নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। তবে ভর্তি পরীক্ষার তারিখ নির্ধারণ ও পদ্ধতি সম্পর্কে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।

মঙ্গলবার (২৭ অক্টোবর) সকাল ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট ভবনে রাবি উপাচার্য অধ্যাপক এম আব্দুস সোবহানের সভাপতিত্বে শিক্ষা পরিষদের ২৫২তম সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

সভায় উপস্থিত বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. ফজলুল হক বলেন, শিক্ষা পরিষদের সভায় ভর্তি পরীক্ষা স্বাস্থ্যবিধি মেনে সশরীরে উপস্থিতির মাধ্যমে নেয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে।

তবে পরীক্ষা কত নম্বরের হবে এবং ভর্তি পরীক্ষায় এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফল বিবেচনা করা হবে কি-না এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি।

শিক্ষা পরিষদের সদস্য আরবি বিভাগের অধ্যাপক ড. ইফতিখারুল আলম মাসউদ বলেন, চলতি বছরের এইচএসসির ফলাফল প্রকাশের পর ভর্তি পরীক্ষা কমিটি পরীক্ষার তারিখ ও পদ্ধতি সম্পর্কে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে। তাতে জানুয়ারির আগে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হওয়ার সম্ভাবনা খুবই কম।

তিনি আরও জানান, শিক্ষকরা মতামত দিয়েছেন- একটি অনুষদের পরীক্ষা যদি পাঁচদিন বসেও নিতে হয় তাও নেয়া হবে। সেক্ষেত্রে শুধুমাত্র সপ্তাহে একদিন ছুটির দিনে পরীক্ষা নিতে হয় তাহলেও আমরা চেষ্টা করবো।

কিন্তু ক্যাম্পাসের বাইরে পরীক্ষা নেয়া হবে না। এর কারণ হলো স্বচ্ছতা নিশ্চিত করা। এর আগে রাজশাহী কলেজের একটি কেন্দ্র থেকে ৫০ জন চান্স পাওয়া নিয়ে প্রশ্ন ওঠায় এমন মতামত দিয়েছেন শিক্ষা পরিষদের সদস্যরা।

এদিকে এমফিল ও পিএইচডি মিলিয়ে ৫২ জনকে ডিগ্রি প্রদান করেছে বিশ্ববিদ্যালয়। তবে করোনার কারণে বিভিন্ন বর্ষের আটকে থাকা পরীক্ষার বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি শিক্ষা পরিষদে।

Leave a Reply