আবেদনময়ী নতুন বন্ডগার্ল আনা ডে আরমাস

12
আবেদনময়ী নতুন বন্ডগার্ল আনা ডে আরমাস

বিনোদন ডেস্ক: বেশ রোমান্টিক আর খোলামেলা অভিনেত্রী হিসেবে সুনাম আছে তার। হলিউডে প্রচলিত আছে, যার বিপরীতেই অভিনয় করেন তার প্রেমেই পড়ে যান তিনি। ছবি শেষ, সেই প্রেমও ভুলে যান। সে যত নামী তারকা অভিনেতাই হোক।

রুপালি পর্দায় আবেদন ছড়াতেও জুড়ি মেলা ভার ৩১ বছর বয়সী কিউবার এই সুন্দরীর। তার নাম আনা ডে আরমাস।

এখন পর্যন্ত হলিউডের অনেক ছবিতে তিনি রগরগে দৃশ্যে একেবারে খোলামেলা অভিনয় করেছেন। বিছানায় দেখা গেছে তাকে নগ্ন অবস্থায়। আনা অভিনীত ব্লেড রানার, ব্লাইন্ড অ্যালে, পার্টি অ্যান্ড লাইজ, নক নক প্রভৃতি ছবি ব্যবসায়িক সাফল্য পাওয়ার নেপথ্যে ছিল এই অভিনেত্রীর নগ্নদেহ প্রদর্শন, এমনটাই মনে করেন হলিউডের বিশ্লেষকরা।

এবার এই আবেদনময়ী জিরো জিরো সেভেন সিরিজের জেমস বন্ডের পরবর্তী কিস্তিতে নায়িকা হয়ে আসছেন। সবকিছু ঠিক থাকলে আনাই হতে যাচ্ছেন ২৫তম কিস্তির বন্ডগার্ল!

যৌন আবেদনময়ী বন্ডগার্ল। রোমান্সেও বাজিমাত করেন তিনি। তাই আবেদনময়ী অভিনেত্রীদেরকেই বেছে নেয়া হয় দুর্ধর্ষ গুপ্তচর জেমস বন্ডের জন্য। সে কারণে তুমুল জনপ্রিয় এই সিরিজে বন্ডগার্লের দিকে বারতি নজর থাকে দর্শকের।

এখন পর্যন্ত বিশ্বখ্যাত বহু অভিনেত্রী বন্ডগার্ল সেজে আবেদন ছড়িয়েছেন। তাদের মধ্যে অন্যতম মলি পিটার্স, ফামকে ইয়ানসন, ডায়ানা রিগ, অলিভিয়া ওয়াইল্ড হ্যালি ব্যারি আর ইভা গ্রিনের মতো অভিনেত্রীরা। তাদের উপস্থিতি জেমস বন্ড সিরিজে দর্শকদের চমকে দিয়েছে। তাদেরই উত্তরসূরি হতে যাচ্ছেন আনা ডে আরমাস।

বলা হচ্ছে ২৪তম কিস্তি পর্যন্ত যত বন্ডগার্ল এসেছেন তাদের মধ্যে অন্যতম সংযোজন হবেন এই অভিনেত্রী। স্বর্ণালি চুল, দুটি সবুজাভ পান্নার মতো চোখ, মোহনীয় হাসি, ঝলমলে চলন আনাকে দিয়েছে অনন্যতা। আর নিজের টান টান দেহবল্লরী ক্যামেরার সামনে পুরোপুরি উন্মোচনেও বেশ উদার তিনি। তাই জেমস বন্ডের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান খুবই উচ্ছ্বসিত আনাকে নিয়ে।

কিউবার মেয়ে আনা ১৬ বছর বয়স থেকেই অভিনয় করছেন। অভিনেত্রী হওয়ার স্বপ্ন তিনি দেখেছেন শৈশবেই। কিন্তু নানা কারণে হতাশ ছিলেন তিনি। সেই হতাশাকে সঙ্গী করে ফিদেল কাস্ত্রোর শাসনামলে মাত্র ১২ বছর বয়সে তিনি দেশ ছেড়ে পালানোর সিদ্ধান্ত নেন। আনার দাদা-দাদি অথবা নানা-নানি স্প্যানিশ। সেই সূত্রে তিনি স্প্যানিশ পাসপোর্টের জন্য আবেদন করার সিদ্ধান্ত নেন ১৮ বছর বয়সে।

তখন তার সঞ্চয় মাত্র ২০০ ইউরো। তাই নিয়ে পাড়ি জমান মাদ্রিদে। সেখানেই গড়ে ওঠে তার অভিনয় ক্যারিয়ার। শিশুশিল্পী হিসেবে শুরু করা আনা এখন পূর্ণ যুবতী হয়ে হলিউড মাতিয়ে চলেছেন।

প্রসঙ্গত, ব্রিটিশ ঔপন্যাসিক ইয়ান ফ্লেমিংয়ের বিখ্যাত চরিত্র ‘জেমস বন্ড’। সিরিজের প্রতিটি ছবিই সুপারহিট ও সারাবিশ্বে ব্যাপক জনপ্রিয়। নজরকাড়া স্ট্যান্ট আর অ্যাকশন ছবিগুলোর অন্যতম বৈশিষ্ট্য।

বন্ড সিরিজের ২৪তম ও সর্বশেষ ছবি মুক্তি পেয়েছিল ২০১৫ সালের ২৬ অক্টোবর, ‘স্পেক্টর’। ভক্তদের অনেক দিন অপেক্ষায় রেখে এবার নির্মাণ করা হচ্ছে সিরিজের ২৫তম ছবি। এর নাম ‘বন্ড টুয়েন্টি ফাইভ’।

এখানে বন্ড হবেন যথারীতি ড্যানিয়েল ক্রেগ। আর তাকে সমানে সমান টেক্কা দিতে এবার ভিলেনরূপে পর্দায় দেখা যাবে অস্কারজয়ী রামি মালেককে। প্রযোজক বারবারা ব্রকোলি সম্প্রতি নিজে এই ঘোষণা দেন।

নতুন এই বন্ড ছবি পরিচালনা করবেন ক্যারি জোজি ফুকুনাগা। সবকিছু ঠিক থাকলে ২০২০ সালের এপ্রিলে মুক্তি পাবে ‘বন্ড টুয়েন্টি ফাইভ’।

আপনার মন্তব্য