আওয়ামী লীগে ‘পকেট কিট’ চলবে না

7
নেতিবাচক রাজনীতির কারণে জনসমর্থন হারিয়েছে বিএনপি

জাতীয় ডেস্ক: আওয়ামী লীগে ‘পকেট কিট’ চলবে না বলে সাফ জানিয়েছেন দলটির সাধারণ সম্পাদক  এবংসড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেছেন, আওয়ামী লীগে ‘পকেট কিট’ (নেতাদের পছন্দের লোক দিয়ে কমিটি করা) চলবে না। দুঃসময়ের ত্যাগী কর্মীদের মূল্যায়ন করতে হবে। যারা আন্দোলন সংগ্রাম করেছেন কিন্তু কমিটিতে জায়গা পাননি, তাদের জায়গা দিতে হবে।

সোমবার পটুয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনে এসব কথা বলেন ওবায়দুল কাদের।

ওবায়দুল কাদের বলেন, কর্মীদের কোণঠাসা করে আওয়ামী লীগ বাঁচবে না। বাংলাদেশকে বাঁচাতে হলে, মুক্তিযুদ্ধকে বাঁচাতে হলে, গণতন্ত্রকে বাঁচাতে হলে আওয়ামী লীগকে বাঁচাতে হবে। আর আওয়ামী লীগকে বাঁচাতে হলে দলের ত্যাগী নেতা-কর্মীদের বাঁচাতে হবে।

সম্মেলনে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদে মোট ১৪ জনের নাম জমা পড়ে। ২০ মিনিট আলোচনা শেষে দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের জেলা কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক এর নাম ঘোষণা করেন।

 তাদের মধ্যে সভাপতি হন বর্তমান কমিটির ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক কাজী আলমগীর ও সাধারণ সম্পাদক হন বর্তমান কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবদুল মান্নান। এই কমিটি তিন বছরের জন্য ঘোষণা করা হয়েছে।

সম্মেলনে দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহাবুব-উল আলম হানিফ বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের ‘এই সরকারের বিদায়ের ঘণ্টা বেজে গেছে’ বক্তব্যের সমালোচনা করেন।

 তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগ গণমানুষের, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হাতে গড়া দল। এ দল কোনো ঠুনকো কচু পাতার পানি নয় যে একে ঘণ্টা দিয়ে বা ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেওয়া যাবে।

সর্বশেষ ২০১৪ সালের ১৩ নভেম্বর সম্মেলন হয়। ওই সম্মেলনে মো. শাহজাহান মিয়াকে সভাপতি ও খান মোশাররফ হোসেনকে সাধারণ সম্পাদক করে জেলা কমিটি গঠন করা হয়েছিল।

আপনার মন্তব্য